শিরোনামঃ

রাঙামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদের মাসিক সভা অনুষ্ঠিত

রাষ্ট্রের ক্ষতি হয় এমন কোন কাজ করা যাবে না : বৃষ কেতু চাকমা

সিএইচটি টুডে ডট কম, রাঙামাটি। রাঙামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদ এর মাসিক সমন্বয় সভা রোববার (১৮মার্চ) সকালে অনুষ্ঠিত হয়েছে। রাঙামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদের সভাকক্ষে আয়োজিত সভায় সভাপতিত্ব করেন জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান বৃষ কেতু চাকমা। পরিষদের মুখ্য নির্বাহী কর্মকর্তা ছাদেক আহমদের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত সভায় রাঙামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদের সদস্য এবং হস্তান্তরিত বিভাগের কর্মকর্তাগণ উপস্থিত ছিলেন।

সভায় সভাপতির বক্তব্যে জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান বৃষ কেতু চাকমা বলেছেন, সরকারকে এবং রাষ্ট্রকে এগিয়ে নিতে আমাদের সকলকে একসাথে কাজ করতে হবে। সকলে মিলেমিশে কাজ করলেই সফলভাবে সার্বিক উন্নয়ন এবং জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু ও তার সুযোগ্য কন্যার স্বপ্ন বাস্তবায়ন সম্ভব। তিনি বলেন, এখন আমাদের দায়িত্ব হলো যে যার অবস্থান থেকে কাজ করে জাতির পিতার স্বপ্ন বাস্তবায়নে সাহায্য করা। তিনি বলেন, মানুষের সেবা করার জন্য সরকার আমাদের নিয়োগ দিয়েছেন। তাই সবসময়ই সাধারণ মানুষের পাশে থেকে সরকারের উন্নয়নে সবাইকে কাজ করতে হবে। কোনোভাবেই সরকারের বা রাষ্ট্রের ক্ষতি হয়, এমন কোনো কাজ করা যাবেনা। সাধারণ জনগণকে সাথে নিয়ে জেলা তথা দেশের উন্নয়নমূলক কাজ করার আহ্বান জানান তিনি।

সভায় স্বাস্থ্য বিভাগের ডেপুটি সিভিল সার্জন ডাঃ নীহার রঞ্জন নন্দী বলেন, রাঙামাটি জেনারেল হাসপাতাল ও বিভিন্ন উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের অবৈধ দখলদার উচ্ছেদের বিষয়ে জেলা প্রশাসন ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাদের সাথে সমন্বয় রেখে পরবর্তী কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন আছে। অন্যদিকে জেনারেল হাসপাতালে সকল স্বাস্থ্যসেবা কার্যক্রম অব্যাহত রয়েছে।

কৃষি সম্প্রসারণ বিভাগের উপ-পরিচালক পবন কুমার চাকমা জানান, চলতি মাসে বোরো মৌসুম শেষ হবে তাই কৃষকদের ব্রি ধান রোপনের পরামর্শ প্রদান করা হচ্ছে। তিনি বলেন, কাপ্তাই হ্রদের পানি সময় মতো না কমায় গত বছরের তুলনায় এ বছর বোরো আবাদ কম হয়েছে। অন্যদিকে গত কয়েকদিন আগে লংগদু উপজেলায় শিলা বৃষ্টি হওয়ায় তরমুজের ক্ষতি হয়েছে।

জেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা (অঃদাঃ) মনছুর আলী চৌধুরী বলেন, প্রাথমিক শিক্ষা বিভাগের শিক্ষক নিয়োগে প্রার্থীদের আবেদন বাছাই সম্পন্ন হয়েছে। কিছুদিনের মধ্যে নিয়োগ পরীক্ষার কার্ড ছাড়া হবে। অন্যদিকে গত বছরের জুন মাসে প্রাকৃতিক দুর্যোগে ক্ষতিগ্রস্ত ২০টি স্কুল মেরামতের কাজ চলছে। প্রতিটি স্কুল মেরামতের জন্য এক লক্ষ টাকা বাজেট রয়েছে।

জেলা প্রাণী সম্পদ কর্মকর্তা মনোরঞ্জন ধর বলেন, চলতি মাসে কৃত্রিম প্রজনন ৪৬২টি, ১১হাজার ৮৬টি প্রাণীকে টিকা প্রদান, ১২হাজার গবাদি পশুকে চিকিৎসা প্রদান করা হয়েছে।

বিসিক-কুটির শিল্প উন্নয়ন কর্মসূচীর সহকারী মহা ব্যবস্থাপক স্বপন কুমার ত্রিপুরা জানান, কুটির শিল্প উন্নয়ন কর্মসূচীর মধ্যে বিভিন্ন মেয়াদে তাঁতে বস্ত্র বুনন, পোশাক সেলাই, বাঁশ বেতের পণ্য তৈরী, কাঠের কাজ, বাটিক ছাপা, কম্পিউটার ফান্ডামেন্টাল ও প্লাষ্টিক ব্যাগ এবং পুতি শিল্প তৈরীর প্রশিক্ষণ চলছে।
সমাজসেবা বিভাগের উপ-পরিচালক(ভাঃ) রুপনা চাকমা বলেন, আর্থ সামাজিক উন্নয়ন, পল্লী মাতৃকেন্দ্র, দুস্থ ও প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের পুনর্বাসন, জেলার ১৪০জন মুক্তিযোদ্ধাকে মাসিক ভাতা, বয়স্ক ভাতা, অসচ্ছল প্রতিবন্ধীদের ভাতা’সহ অন্যান্য কার্যক্রম চলছে।

হর্টিকালচার সেন্টার বালুখালী, বনরুপা, লংগদু, নানিয়ারচর, আসামবস্তী ও কাপ্তাইয়ের উদ্দ্যান তত্ববিদরা জানান, বর্তমানে নার্সারিতে টার্গেট অনুযায়ী চারাকলাম উৎপাদন ও বিক্রয় কার্যক্রম চলছে।

Print Friendly, PDF & Email

Share This:

খবরটি 83 বার পঠিত হয়েছে


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*
*

Time limit is exhausted. Please reload CAPTCHA.

ChtToday DOT COMschliessen
oeffnen